ঢাকা, , ২১ শ্রাবণ ১৪২৮ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে

আমির হামজাকে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর কেউ আটক করেনি :পুলিশ সুপার

আমির হামজাকে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর কেউ আটক করেনি :পুলিশ সুপার
আমির হামজা (কুষ্টিয়া)

আলোচিত বক্তা আমির হামজাকে আটক করা হয়নি বলে জানিয়েছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীগুলো। মঙ্গলবার (২৪ মে) বিকাল পাঁচটার দিকে কুষ্টিয়ার হালসায় নিজ বাড়ি থেকে সাদা পোশাকের কয়েকজন তাঁকে নিয়ে গেছেন বলে দাবি করেছেন তাঁর শ্যালক আবু বকর।


 তিনি বলেন, ওয়াজ মাহফিলের তারিখ চাওয়ার জন্য এসেছেন বলে কয়েকজন আমির হামজার সংগে কথা বলতে চান। তাঁদের বাসার ভেতরে নেওয়া হলে কিছু সময় কথা বলার পর তাঁকে হাতকড়া পরিয়ে নিয়ে যান। তবে কোথায় নিয়ে যাওয়া হচ্ছে তা জানাননি।

এদিকে আমির হামজাকে গ্রেফতার করা হয়নি বলে জানিয়েছে পুলিশ। বিকাল ৫টা ৩৯ মিনিটে জেলা পুলিশ সুপার মো. খায়রুল আলমের সংগে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, তাঁকে আটকের তথ্য জানা নেই। খোঁজ নিয়ে জানতে হবে।


এরপর বিকাল ৫টা ৫৮ মিনিটে আবার ফোন করা হলে তিনি বলেন, 'জেলা পুলিশের কোনো টিম তাঁকে আটক করেনি।'


পরিবারের অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, যদি তাঁকে কেউ তুলে নিয়ে যায় এবং পরিবারের পক্ষ থেকে আমাদের কাছে অভিযোগ করা হয় তাহলে অবশ্যই ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বাংলাদেশের যে প্রান্তেই থাকুক তাঁকে উদ্ধার করে আনবো।

এ বিষয়ে কুষ্টিয়া জেলা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই), গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) এবং পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)-এর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সংগে যোগাযোগ করা হলে তাঁরাও জানিয়েছেন, আমির হামজাকে গ্রেফতারের কোনো তথ্য তাঁদের কাছে নেই।

ওয়াজ-মাহফিল ও ইউটিউবে উগ্রবাদ প্রচার করার অভিযোগে ২০১৯ সালের মার্চে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের রাজনৈতিক অধিশাখা-২ থেকে ১৫ জন বক্তার একটি তালিকা তৈরি করে প্রতিবেদন দেওয়া হয়। ইতিমধ্যে এদের কয়েকজন গ্রেফতার হয়েছেন। সেই তালিকায় মুফতি আমির হামজার নামও ছিলো।

কুষ্টিয়ার আঞ্চলিক ভাষায় ওয়াজকারী মুফতি আমির হামজা দ্রুত জনপ্রিয়তা পাওয়া বক্তাদের মধ্যে অন্যতম। ১৯৯১ সালে কুষ্টিয়া জেলায় তাঁর জন্ম। ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় কুষ্টিয়া থেকে "আল-কুরআন" বিষয়ে অনার্স ও মাস্টার্স করেছেন তিনি।

  • সর্বশেষ - সারাদেশ