ঢাকা, , ২৮ আষাঢ় ১৪২৭ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে

আমার রক্তে বিএনপি, নিঃশ্বাসে বিএনপি, আদর্শ তারেক রহমান

আমার রক্তে বিএনপি, নিঃশ্বাসে বিএনপি, আদর্শ তারেক রহমান

  রাজনীতি কত বয়স থেকে শুরু করেছি জানিনা, তবে ২০০০ সালে খালেদা জিয়া যখন সিলেটে সাংগঠনিক সফরে আসেন সেই সমাবেশে গাড়ী বহরে গিয়েছি৷

সাথে আমার হাইস্কুলে,আমার সাথে, আবার কেউ আমার উপরের ক্লাস এর ফ্রেন্ড’সদের করেছি রাজনৈতিক সঙ্ঘী,কোথাও কোন ছাত্রদলের মিটিং হলে মিস করিনি, ক্লাস শেষ হলে কখনো খেয়ে আবার কখনো না খেয়ে ছুটেছি, আমাদের ইউনিয়নের আবার কখনো ডাক বাংলায়,সব মিটিং এ বক্তব্যে দেওয়ার সুযোগ করে দিতেন সিনিয়ার ভাই’রা 

 2004 সালে আমাদের ইউনিয়নের কমিটি সরাসরি ভোটারদের ভ্যলেটের ভোটে সাধারন সম্পাদক হই মোট ভোট পেয়েছিলাম ৩৬১ সেখানে উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য দিলদার হুসেন সেলিম, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি ইমরান আহমেদ চৌধুরী, সাইদ আহমেদ, ইফতেখার আহমেদ দিনার(আমার কাছের খুব প্রিয় মানুষ)রেজাউল করিম নাচন, ফয়েজ ভাই সহ তারকা বহুল অনেক নেতা।

ইউনিয়ন থেকে শুরু করে, থানা, উপজেলা,জেলা, কলেজ,  বিশ্ববিদ্যালয় সব জায়গায় ছিল সমান বিচরন। ছাত্র দলের রাজনীতি কি হাড়ে হাড়ে বুঝেছি, কমান্ড কি শিখেছি, স্কুল কলেজ এর শিক্ষা আর ছাত্রদল থেকে নেওয়া শিক্ষা আমাকে শিখিয়েছে সমাজে কি করে চলতে হয়।

তাই আমি মনে করি ছাত্রদলের রাজনীতি ছাড়া বিএনপি আর বিএনপি তৃনমূল ছাড়া সফলতা সম্বব নয়। বিএনপি’র তৃনমূল থেকে উঠে আসা নেতাদের কাছে বিএনপিকে তুলে দিন দেখবেন বিএনপি উপরে উঠতে বেশি দিন লাগবে না। তৃনমূল বিএনপি’ই খাটি বিএনপি।

তারা বিএনপি কে ভালোবাসে মায়ের মত, আগলে রাখে হৃদয়ের গভীরে৷ নেতৃত্ব তুলে দিন তাদের হাতে যারা তৃণমূল থেকে উঠে এসেছে, যারা নেতৃত্ব দিতে চায় তাদের অতীতের কর্মকাণ্ড দেখুন তাদের বায়ো ডাটা দেখুন তার পর দায়িত্ব তুলে দিন দেখবে আমার বিএনপি সুরক্ষিত থাকবে।ভালোবাসি তাই অধিকার খাটাতে আসি, জিয়াউর রহমান, বেগম খালেদা জিয়া ও তারেক রহমান আমার নেতা। আমি বিশ্বাস করি আজ হোক কাল হোক দেশ শাষন ভার আসবে বিএনপি’র হাতে এবং তারেক রহমান ই হবেন আমাদের কান্ডারি৷ 

( ঊল্লেখ্য ছবিতে স্বাক্ষরকারী তৎকালীন ছাত্রদলের সভাপতি আজিজুল বারী হেলাল ও সাধারন সম্পাদক শফিউল বারী বাবু)


লেখক -সাবেক ছাত্রনেতা ও সাধারণ সম্পাদক স্বেচ্ছাসেবক দল (লন্ডন মহানগর)


  • সর্বশেষ - পাঠকের কলাম